ব্রেকিং নিউজ
সংবিধানে সহায়ক সরকার বলতে কিছু নেই: ১৯ সালের নির্বাচন হবে সংবিধান অনুযায়ি শেখ হাসিনার অধিনে—মাহবুবুল আলম হানিফ

সংবিধানে সহায়ক সরকার বলতে কিছু নেই: ১৯ সালের নির্বাচন হবে সংবিধান অনুযায়ি শেখ হাসিনার অধিনে—মাহবুবুল আলম হানিফ

মৌলভীবাজার জেলা যুবলীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত

এম এ মোহিত:
আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুল আলম হানিফ এমপি বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ভারত সফরের সময় সামরিক চুক্তি কোন এজেন্ডা ছিল না। অথচ বিএনপি সামরিক চুক্তি নিয়ে বক্তব্য দিয়ে দেশের মানুষের মধ্যে বিভ্রন্তি ছড়াচ্ছে। তিনি আরো বলেন, সংবিধানে সহায়ক সরকার বলতে কিছু নেই ২০১৯ সালের একাদশ সংসদ নির্বাচন সংবিধান অনুযায়ি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অধিনে হবে এবং বিএনপি একাদশ সংসদ নির্বাচনে অংশ নেবে। তারা ১০ম সংসদ নির্বাচনে অংশ না নিয়ে যে ভুল করেছে একদশ সংসদ নির্বাচনে সে ভুল আর করবে না। হানিফ বৃহস্পতিবার বিকালে মৌলভীবাজার জেলা যুবলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন। মৌলভীবাজার জেলা যুবলীগের সভাপতি ফজলুর রহমানের সভাপতিত্বে জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক নাহিদ আহমদের সঞ্চলনায় স্থানীয় জনমিলন কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত সম্মেলনের উদ্বোধন করে যুবলীগ চেয়ারম্যান ওমর ফারুক চৌধুরী । তিনি বলেন, ৫ জানুয়ারি সংসদ নির্বাচন না হলে বাংলাদেশ তালেবান রাষ্ট্র হয়ে যেত। অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন কেন্দ্রীয় যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক হারুণ অব রশীদ, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এস এম জাকির হোসাইন, কেন্দ্রীয় আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এডভোকেট মিছবাহ উদ্দিন সিরাজ, মৌলভীবাজার জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক নেছার আহমদ,  মৌলভীবাজার জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আজিজুর রহমান, মৌলভীবাজার জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আবদুস শহীদ এমপি, জাতীয় সংসদের হুইপ মো: শাহাব উদ্দিন, মৌলভীবাজার-৩ আসনের এমপি সৈয়দা সায়রা মহসিন, মৌলভীবাজার-২ আসনের এমপি আবদুল মতিন, উপস্থিত ছিলেন জেলা ছাত্রলীগের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি প্রবীন লন্ডন প্রবাসী আওয়ামীলীগ নেতা মো: ফিরোজ, জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মিছবাহুর রহমান ও কামাল হোসেন এবং সাইফুর রহমান বাবুল, যুবলীগ সাংগঠনিক সম্পাদক সুব্রত পুরকায়েস্ত,জেলা স্বেচ্ছা সেবক লীগের সভাপতি নাজমূল হক, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ রেজাউর রহমান সুমন, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আসাদুজ্জামান রনি, সাধারণ সম্পাদক সাইফুর রহমান রনি, জেলা ছাত্রলীগের সহ সভাপতি সৈয়দা সানজিদা শারমিন প্রমূখ।

Share This:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*